বেরোবিতে পতাকা বিকৃতিকারীদের শাস্তির দাবিতে মানববন্ধন

বেরোবি, রংপুর: সম্প্রতি দেশব্যাপী সমালোচিত বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে (বেরোবি) পতাকা অবমাননাকারী শিক্ষকদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল ও মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করে বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগ।

বুধবার (২২ ডিসেম্বর) দুপুর ১২ টায় বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের মূল ফটকের সামনে অনুষ্ঠিত হয়।

ঘন্টাব্যাপী এই মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিলে সভাপতিত্ব করেন বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সভাপতি তুষায় কিবরিয়া।

এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগ শাখার সাধারণ সম্পাদক নোবেল শেখ, ফয়সাল আজম ফাইন, মারুফ ভূঁইয়া, রেজাউল করিম শাকিল, শহিদুল ইসলাম ইত্যাদি প্রমুখ।

এছাড়াও উক্ত মানববন্ধনে উপস্থিত ছিলেন জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি মমতাজ উদ্দিন আহমেদ, ১৫ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর জাকারিয়া আলম শিপলু সহ রংপুরের আওয়ামীলীগ ও ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা।

বক্তব্যে জেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি মমতাজ উদ্দিন আহমেদ বলেন, বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের মত একটি উচ্চ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষকরা একের পর এক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান কে অসম্মান করে বেদিতে জুতাসহ পা দিয়ে উঠছে, বঙ্গবন্ধুর বানান ভূল করছে, সর্বশেষ ৩০ লক্ষ শহীদের আত্মত্যাগের বিনিময়ে অর্জিত পতাকার অবমাননা করেছেন যা অত্যন্ত ন্যক্কারজনক একটি কাজ। এছাড়াও এই বিশ্ববিদ্যালয়ের বর্তমান ভিসি নাজমুল আহসান কলিমুল্লাহও বারংবার এই বিষয়গুলো সম্পর্কে জোড়ালো কোনো পদক্ষেপ নেয়নি তারমানে তিনিও নীরবে এগুলোর সমর্থন করছেন। তিনি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দৃষ্টি আকর্ষণ করে বলেন, অতিদ্রুত এই পতাকা অবমাননাকারী কতিপয় শিক্ষকসহ এই ভিসির বহিষ্কার করে বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয় তথা রংপুরে বঙ্গবন্ধুর সম্মান অটুট রাখার প্রত্যয় রাখুন।

এছাড়াও এই মানববন্ধনে অনেক আওয়ামীলীগ ও ছাত্রলীগ নেতা-কর্মীরা বক্তব্য প্রদান করেছেন।

উল্লেখ্য, গত ১৬ই ডিসেম্বর বিজয় দিবসে বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের কিছুসংখ্যক শিক্ষক ক্যাম্পাসের স্বাধীনতা স্মারকের সামনে একটি বিকৃত পতাকা নিয়ে ছবি তোলে। কিছুক্ষণ পর সেই ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুকে পোষ্ট করলে বিষয়টি নিয়ে দেশব্যাপী সমালোচনা শুরু হয়ে যায়।

খোলাচিঠি/নাজমুল হুদা নিমু/এসএএন